কামাল, বি চৌধূরী, মান্নার সরকার বিরোধী ষড়যন্ত্র ফাঁস

ঢাকা অফিসঃ দেশের প্রধান দুই দল আওয়ামী লীগ ও বিএনপির বাইরে তৃতীয় শক্তি হিসেবে গণফোরামের সভাপতি ড. কামাল হোসেন, বিকল্পধারার সভাপতি ডা. একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী ও নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না মিলে এক ঐক্য গঠনের চেষ্টা করছে। সরকার পতনের জন্য এই ঐক্য কাজ করবে বলে জানিয়েছে নির্ভরযোগ্য সূত্র।

নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্নার এক ঘনিষ্ঠ সহকর্মী গোয়েন্দাদের জালে ফেসে গেছেন। তার তথ্য মতে, সরকার বিরোধী অনেক ষড়যন্ত্র করছে সাবেক এই নেতারা। তাদের মূল টার্গেট আগামি জাতীয় নির্বাচন, নির্বাচনের তফসিল ঘোষনার আগে রাষ্ট্রপতি বাসভনের সামনে আওয়ামী লীগ সরকারের বিরুদ্ধে তিন থেকে চার দফার দাবিতে অনশনে বসতে স্বিদ্ধান্তও নিয়ে ফেলেছেন এসব নেতারা। তাদের ধারনা অনশন শুরু হলে দেশি বিদেশী অনেক মিডিয়ার কাভারেজ পাবেন তারা, আর ঠিক তখনই মিডিয়া কাভারেজ ব্যবহার করে বিএনপি- জামায়াত জোট দেশ জুড়ে অরাজকতা সৃষ্টি করে আওয়ামী লীগের উপর দ্বায়ভার চাপিয়ে সরকার পতনের ডাক দিয়ে বিএনপি নেতৃত্বাধীন জাতীয় ঐক্য নামের একটা জোট গঠন করার স্বিদ্ধান্ত হয়েছে। আর এ ব্যাপারে লন্ডনে অবস্থিত বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারপাসন তারেক রহমানের সম্মতি আদায় করতেও সক্ষম হয়েছেন সাবেক এই নেতারা।

সম্প্রতি ঢাকার এক পাচ তারকা হোটেলে লন্ডন থেকে আসা এক ব্যক্তির সাথে বৈঠকে বসেন গণফোরামের সভাপতি ড. কামাল হোসেন, বিকল্পধারার মহাসচিব মাহি বি চৌধুরী ও নাগরিক ঐক্যের আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না। ডা. একিউএম বদরুদ্দোজা চৌধুরী অসুস্থ থাকায় সে বৈঠকে উপস্থিত হতে পারননি। বৈঠকে তারেক রহমানের সাথে অডিও আলাপে সমস্ত বিষয় নিয়ে কথা বলেন বৈঠকে উপস্থিত এই নেতারা, সেই বৈঠক থেকেই এসব নেতাদের প্রস্তাবে সম্মতি দেন তারেক রহমান। বৈঠক শেষে জামায়াত এর একদল শীর্ষস্থানীয় নেতাদের সঙ্গেও বৈঠক করেন সাবেক এই নেতারা। তবে জামায়াতের কে কে এই বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন নিশ্চিত করতে পারেননি মান্নার ঘনিষ্ঠ এই সহকর্মী।