আজ - শুক্রবার, ৯ই ডিসেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ২৪শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১৫ই জমাদিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি, (হেমন্তকাল), সময় - সকাল ৯:১৭

খালেদাকে মাইনাস করার ষড়যন্ত্র ফাঁস হওয়ায় দেশে ফিরছেন না জোবায়দা রহমান

নিউজ ডেস্ক: খালেদাপন্থী নেতাদের অসহযোগিতা এবং রাজনৈতিক পরিস্থিতি বিপক্ষে জেনে নির্বাচনের পূর্বে বাংলাদেশে আসছেন না লন্ডনে পলাতক বিএনপি নেতা তারেক রহমানের স্ত্রী জোবায়দা রহমান।

সূত্র বলছে, বিএনপিকে খালেদা জিয়ার হস্তক্ষেপ থেকে মুক্ত করতে এবং সরকারের সাথে আঁতাত করে খালেদা জিয়াকে বাদ দিয়ে নির্বাচনে অংশ নেওয়ার মিশন নিয়ে দেশে ফিরতে চেয়েছিলেন জোবায়দা রহমান। কিন্তু স্বামী-স্ত্রীর ষড়যন্ত্র ফাঁস হয়ে যাওয়ায় খালেদাপন্থী বিএনপি নেতাদের প্রতিরোধের ঘোষণার মুখে বাংলাদেশ সফর বাতিল করেছেন জোবায়দা।

লন্ডন বিএনপি নেতা মালেকের ঘনিষ্ঠ সূত্রে জানা যায়, খালেদা জিয়ার দুর্নীতি প্রমাণিত হওয়ায় আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে খালেদা জিয়া এবং বিএনপির অংশগ্রহণ নিয়ে বাংলাদেশসহ দলটির ডোনারখ্যাত বন্ধুরাষ্ট্রগুলোর মধ্যে গুঞ্জন সৃষ্টি হয়েছে। খালেদা জিয়ার মুক্তিতে ব্যর্থ বিএনপির আগামীর নেতৃত্ব নিয়েও দলটিতে বিভক্তি স্পষ্ট প্রতীয়মান হয়েছে। খালেদা জিয়ার নির্বুদ্ধিতা এবং তারেক রহমানের সীমাহীন দুর্নীতি ও লুটপাটের কারণে বিএনপির আজ করুণ দশা। এছাড়া খালেদা জিয়া বিতর্কিত ও যুদ্ধাপরাধের দায়ে অভিযুক্ত দেশের স্বাধীনতা বিরোধী সংগঠন জামায়াতকে ছাড়তে নারাজ। খালেদার মতে বিএনপির প্রয়োজন রয়েছে জামায়াতের। জামায়াত বিএনপির সহিংসতার আসল সহযোগী। অন্যদিকে জামায়াতকে নিয়ে তারেক ও জোবায়দার এক ধরনের ঘৃণা রয়েছে। এছাড়া আন্তর্জাতিক মহল জামায়াতকে সন্ত্রাসী সংগঠন হিসেবে চিনে। সুতরাং খালেদা ও তারেকের রাজনৈতিক দর্শনের ভিন্নতা রয়েছে অনেক জায়গায়। খালেদা জিয়াকে তাই বাদ দিয়েই আগামী জাতীয় নির্বাচনে অংশ নিয়ে বিএনপির নিবন্ধন বাঁচাতে ব্যতিব্যস্ত হয়ে পড়ছেন তারেক-জোবায়দা। এছাড়া খালেদা জিয়া বিএনপির রাজনীতির জন্য আর উপযুক্ত নন বলে তাদের ধারণা।

তারেক রহমানের ধারণা, খালেদার হিসেব মত বিএনপি চললে দলটি অচিরেই বিভক্ত হয়ে জাতীয় পার্টির মত ব্যক্তি মালিকানার দলে পরিণত হবে। এমন সব ধারণা থেকে খালেদাকে বাদ দিয়ে স্ত্রী জোবায়দা রহমানের নেতৃত্বে বিএনপিকে আগামী জাতীয় নির্বাচনে নিতে চান তারেক। সেই পরিকল্পনার বাস্তব রূপ দিতে তাই রাজনৈতিক সফর এবং খালেদা জিয়ার সাথে সাক্ষাত করার নামে মূলত সরকারের একটি অংশের সাথে আলোচনা করে আনুকূল্য পাওয়ার ষড়যন্ত্র করতে বাংলাদেশ সফর করতে চেয়েছিলেন জোবায়দা।

কিন্তু বিএনপি সূত্র বলছে, খালেদাকে মাইনাস করার পরিকল্পনা ফাঁস হয়ে যাওয়ায় খালেদাপন্থী নেতা মির্জা ফখরুল, মির্জা আব্বাস, মওদুদ আহমদ, নজরুল ইসলাম খানদের কঠোর মৌখিক ও লিখিত প্রতিরোধের মুখে বাংলাদেশ সফর বাতিল করেছেন জোবায়দা রহমান। জানা গেছে, দেশে ফিরলে জোবায়দাকে শায়েস্তা করে ষড়যন্ত্রের বিষয়টি নিয়ে প্রেস ব্রিফিং করার হুমকি দেওয়ায় মূলত সম্মান বাঁচাতে দেশে না ফেরার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন জোবায়দা রহমান।

আরো সংবাদ