আজ - রবিবার, ২৭শে নভেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ, ১২ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৩রা জমাদিউল আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরি, (হেমন্তকাল), সময় - রাত ৪:২০

যশোরের নীরা সংরক্ষিত মহিলা সংসদ সদস্যের আলোচনায়

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ একাদশ জাতীয় সংসদে সংরক্ষিত মহিলা সংসদ সদস্য হিসেবে যশোরে সর্বোচ্চ আলোচনায় রয়েছেন জেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নূরজাহান ইসলাম নিরা। রাজনৈতিক ব্যাকগ্রাউন্ড ও বর্তমান রাজপথের তৎপরতাকে গুরুত্ব দিয়ে নেতাকর্মীরা ‘প্রিয় আপাকে’ সংসদে দেখতে চাইছেন।
গত ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জয়ী হয়ে আওয়ামী লীগের নেতৃত্বাধীন জোট ইতিমধ্যে সরকার গঠন করেছে। এখন আইন অনুযায়ী ৫০ জন সংরক্ষিত মহিলা সংসদ সদস্য নির্বাচনের মনোনয়ন নিয়ে আলোচনা চলছে। এজন্য আলোচনায় বেশ জোরেসোরেই আছেন জেলা মহিলা লীগের সভাপতি নূরজাহান ইসলাম নীরা।
দলীয় সূত্রে জানা যায়, একাদশ সংসদে সংরক্ষিত মহিলা সংসদ সদস্য হিসেবে নূরজাহান ইসলাম নীরাকে দেখতে চান নেতাকর্মীরা। কারণ হিসেবে তারা বলছেন, ৩৮ বছর ধরে আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে সক্রিয়ভাবে জড়িত রয়েছেন তিনি। এর মধ্যে স্বৈরাচার এরশাদ বিরোধী আন্দোলন ও জামায়াত-বিএনপির আমলে ডিসি অফিস থেকে বেগম খালেদা জিয়ার ছবি নামিয়ে পুড়িয়ে ফেলার অপরাধে তাকে কারাবরণ করতে হয়েছে। বিগত জামায়াত-বিএনপি সরকারের সময় আন্দোলন করতে গিয়ে রাজপথে নির্যাতিত হয়েছেন। আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে বর্তমান সরকারের উন্নয়ন চিত্র তুলে ধরতে সর্বশেষ নির্বাচনেও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন। রাজনীতির পাশাপাশি তিনি বিভিন্ন সামাজিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠনের সাথেও যুক্ত আছেন।


জানা যায়, ছাত্রাবস্থায় নূরজাহান ইসলাম নীরা ছাত্রলীগের রাজনীতির সাথে যুক্ত হন। ১৯৮০ সালে যশোর সরকারি মহিলা কলেজ ছাত্রলীগের সাংস্কৃতিক সম্পাদক নির্বাচিত হন। পরে যশোর জেলা ছাত্রলীগের সহ-সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পান। ১৯৯২ সালে যশোর মহিলা লীগের সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন। পরের বছর যশোর পৌরসভার ইতিহাসে প্রথমবারের মতো নারী হিসেবে কমিশনার পদে নির্বাচন করে জয়ী হন। বর্তমানে তিনি জেলা মহিলা লীগের সভাপতির পাশাপাশি জেলা আওয়ামী লীগের সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।
যশোর জেলা মহিলা লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক হাজেরা পারভীন বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। আমরা যশোর জেলা মহিলা লীগের সভাপতি নূরজাহান ইসলাম নীরা ও সাধারণ সম্পাদক জারিন রহমানের নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধভাবে সরকারের উন্নয়নের চিত্র তৃণমূলে পৌঁছে দিতে কাজ করছি। তৃণমূলের নেতাকর্মীদের দাবি আমাদের সভাপতি সংসদে গিয়ে নারীর ক্ষমতায়ন ও উন্নয়ন নিয়ে কথা বলুক। আমরা তাকে সংসদে দেখতে চাই।’
যোগাযোগ করা হলে জেলা মহিলা লীগের সভাপতি নূরজাহান ইসলাম নীরা বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা গড়ার স্বপ্ন নিয়ে ছাত্রজীবনে রাজনীতির সাথে যুক্ত হই। দীর্ঘ ৩৮ বছরের রাজনৈতিক জীবনে কেন্দ্রীয় নেতাদের নির্দেশনা মেনে কাজ করেছি। আমাদের নেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের সার্বিক উন্নয়নের জন্য নারীর ক্ষমতায়নকে গুরুত্ব দেন। তাই নারীর উন্নয়ন ও অধিকার প্রতিষ্ঠায় রাজপথে আছি। প্রধানমন্ত্রী চাইলে একাদশ সংসদে সংরক্ষিত মহিলা সংসদ সদস্য নির্বাচনে মনোনয়ন কিনবো।’

আরো সংবাদ
যশোর জেলা
ফেসবুক পেজ
সর্বাধিক পঠিত