যশোরে ছাত্রলীগ নেতাকে কুপিয়ে জখম- অবস্থা আশঙ্কাজনক!

নাঈম সাব্বির : যশোরে রাকিব হাসান (২৮) নামে এক কলেজছাত্রকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে গুরুতর আহত করেছে দুর্বৃত্তরা। আজ রাত সাড়ে সাতটার দিকে নীলগঞ্জ সেতুর ওপর তিনি আক্রান্ত হন।
রাকিব বাংলাদেশ ছাত্রলীগ সরকারি সিটি কলেজ শাখার যুগ্ম-সম্পাদক ও শহরের নীলগঞ্জ সাহাপাড়ার জাকির হোসেনের ছেলে।

অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় রাকিবকে উন্নত চিকিৎসার জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করা হয়েছে। হামলার প্রতিবাদে সিটি কলেজ ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা যশোর জেনারেল হাসপাতালের সামনে তাৎক্ষনিক বিক্ষোভ দেখিয়েছেন।

এ ব্যাপারে জেলা ছাত্রলীগ সভাপতি রওশন ইকবাল শাহী বলেন, রাকিব হাসান যশোর সরকারি সিটি কলেজ থেকে মাস্টার্স পরীক্ষা দিয়েছেন। বর্তমানে তিনি নীলগঞ্জ এলাকায় ‘বাবলু ইঞ্জিনিয়ারিং’ নামে একটি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করেন। নীলগঞ্জ ব্রিজের চিহ্নিত কিছু সন্ত্রাসী দলের চাঁদাবাজ দের মোকাবেলা করেছিলো রাকিব, তার জের ধরেই তাকে হত্যা চেষ্টা করা হয়েছে।

হাসপাতালের জরুরি বিভাগের ডাক্তার কল্লোল কুমার সাহা রাত সোয়া আটটার দিকে খানজাহান আলী24.com কে বলেন, ‘রাকিবের অবস্থা খুবই আশঙ্কাজনক।’
সার্জারি ওয়ার্ডের সিনিয়র নার্স শামসুন্নাহার ডাক্তার শরিফুল আলম খানের উদ্ধৃতি দিয়ে বলেন, ‘অবস্থা খুবই আশঙ্কাজনক হওয়ায় রাকিবকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার করা হয়েছে।’

এ ব্যাপারে কোতয়ালী থানার এসআই আসাদুজ্জামান খানজাহান আলী24.com কে বলেন, কলেজছাত্রকে ছুরিকাঘাতের খবর শুনে থানা থেকে আমরা পৃথক দুটি মোবাইল টিম হাসপাতালে এসেছি। ঘটনার সাথে জড়িতদের আটকের জন্য পুলিশি অভিযান চলছে।